ঢাকা ১১:২৭ অপরাহ্ন, সোমবার, ২৪ জুন ২০২৪, ১০ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

কেরানীগঞ্জে দিনে-দুপুরে ফ্লাটের চুরির ঘটনায় চোর চক্রের ০৬ সদস্যকে গ্রেফতার

মো: শাহিন (নিজস্ব প্রতিবেদক)
মো: শাহিন (নিজস্ব প্রতিবেদক)
  • আপলোড সময় : ০৯:৩৭:০৩ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
  • / ৩৮৬ বার পড়া হয়েছে

ঢাকার কেরানীগঞ্জের জিনজিরা এলাকায় দিনে-দুপুরে ফ্লাট বাসা চুরির ঘটনায় দুর্ধর্ষ চোর চক্রের ০৬ সদস্যকে গ্রেফতার করেছে কেরানীগঞ্জ মডেল থানা পুলিশ। গ্রেফতারকৃতরা হলেন, বুলু (৩০), সজল (২১), সাগর (২১), রাসেল, ৫। সোহেল (৩০) ও ৬। হাসান (৫০)।আজ বিকালে এক সাংবাদিক সম্মেলনে এ তথ্য নিশ্চিত করেন কেরানীগঞ্জ সার্কেলে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার শাহাবুদ্দিন কবীর। তিনি বলেন, গত ০৬ ফেব্রুয়ারি দুপুর ১২টায় কেরাণীগঞ্জ মডেল থানার জিনজিরা টিনপট্টি আমজাদ এর চার তলা বিল্ডিংয়ের ৩য় তলার পূর্ব পাশে ফরহাদ হোসেনের স্ত্রী গ্রামের বাড়ী হতে বেড়ানো শেষে তার ভাড়াটিয়া বাসায় এসে ফ্ল্যাটের দরজায় থাকা তালা ভাঙ্গা অবস্থায় দেখতে পায়। রুমের দরজা খোলা ও রুমের ভিতরে থাকা সবকিছু এলোমেলো, আলমারীর ড্রয়ারে থাকা নগদ টাকা, তার স্ত্রী ও মেয়ে ফারিয়ার ব্যবহৃত পাঁচ ভরি ওজনের বিভিন্ন স্বর্ণালংকার, শ্যালক এর ব্যবহৃত একটি হাত ঘড়ি ও রুমে থাকা ২টি মোবাইল ফোন চোরচক্র চুরি করে নিয়ে যায়। উক্ত চুরির ঘটনায় ফরহাদ হোসেন (৪৬) বাদী হয়ে অজ্ঞাতনামা চোরদের বিরুদ্ধে কেরাণীগঞ্জ মডেল থানায় চুরির মামলা দায়ের করেন। মামলা রুজুর সাথে সাথে কেরাণীগঞ্জ মডেল থানার একটি চৌকস তদন্ত টিম সংঘবদ্ধ এই চোরচক্রের সদস্যদের গ্রেফতারের লক্ষ্যে তথ্য-প্রযুক্তির সর্বোচ্চ ব্যবহার ও সোর্স নিয়োগ করে কার্যক্রম শুরু করে। তদন্তের এক পর্যায়ে উক্ত তদন্তদল মামলার অজ্ঞাতনামা আসামীদের সনাক্ত করতে সক্ষম হয়। একটি আভিযানিক দল কেরাণীগঞ্জ ডিএমপির বিভিন্ন এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে ছয় ছিনতাইকারীকে গ্রেফতার করেন।

সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন

কেরানীগঞ্জে দিনে-দুপুরে ফ্লাটের চুরির ঘটনায় চোর চক্রের ০৬ সদস্যকে গ্রেফতার

আপলোড সময় : ০৯:৩৭:০৩ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ১৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

ঢাকার কেরানীগঞ্জের জিনজিরা এলাকায় দিনে-দুপুরে ফ্লাট বাসা চুরির ঘটনায় দুর্ধর্ষ চোর চক্রের ০৬ সদস্যকে গ্রেফতার করেছে কেরানীগঞ্জ মডেল থানা পুলিশ। গ্রেফতারকৃতরা হলেন, বুলু (৩০), সজল (২১), সাগর (২১), রাসেল, ৫। সোহেল (৩০) ও ৬। হাসান (৫০)।আজ বিকালে এক সাংবাদিক সম্মেলনে এ তথ্য নিশ্চিত করেন কেরানীগঞ্জ সার্কেলে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার শাহাবুদ্দিন কবীর। তিনি বলেন, গত ০৬ ফেব্রুয়ারি দুপুর ১২টায় কেরাণীগঞ্জ মডেল থানার জিনজিরা টিনপট্টি আমজাদ এর চার তলা বিল্ডিংয়ের ৩য় তলার পূর্ব পাশে ফরহাদ হোসেনের স্ত্রী গ্রামের বাড়ী হতে বেড়ানো শেষে তার ভাড়াটিয়া বাসায় এসে ফ্ল্যাটের দরজায় থাকা তালা ভাঙ্গা অবস্থায় দেখতে পায়। রুমের দরজা খোলা ও রুমের ভিতরে থাকা সবকিছু এলোমেলো, আলমারীর ড্রয়ারে থাকা নগদ টাকা, তার স্ত্রী ও মেয়ে ফারিয়ার ব্যবহৃত পাঁচ ভরি ওজনের বিভিন্ন স্বর্ণালংকার, শ্যালক এর ব্যবহৃত একটি হাত ঘড়ি ও রুমে থাকা ২টি মোবাইল ফোন চোরচক্র চুরি করে নিয়ে যায়। উক্ত চুরির ঘটনায় ফরহাদ হোসেন (৪৬) বাদী হয়ে অজ্ঞাতনামা চোরদের বিরুদ্ধে কেরাণীগঞ্জ মডেল থানায় চুরির মামলা দায়ের করেন। মামলা রুজুর সাথে সাথে কেরাণীগঞ্জ মডেল থানার একটি চৌকস তদন্ত টিম সংঘবদ্ধ এই চোরচক্রের সদস্যদের গ্রেফতারের লক্ষ্যে তথ্য-প্রযুক্তির সর্বোচ্চ ব্যবহার ও সোর্স নিয়োগ করে কার্যক্রম শুরু করে। তদন্তের এক পর্যায়ে উক্ত তদন্তদল মামলার অজ্ঞাতনামা আসামীদের সনাক্ত করতে সক্ষম হয়। একটি আভিযানিক দল কেরাণীগঞ্জ ডিএমপির বিভিন্ন এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে ছয় ছিনতাইকারীকে গ্রেফতার করেন।

সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন