ঢাকা ১২:০৪ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৩ মে ২০২৪, ৮ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

সরকারকে ব্যর্থ প্রমাণের এক পরিকল্পিত নীলনকশার চলছে : শেখ পরশ

মো: শাহিন (নিজস্ব প্রতিবেদক)
মো: শাহিন (নিজস্ব প্রতিবেদক)
  • আপলোড সময় : ০৮:০৫:১২ অপরাহ্ন, রবিবার, ৭ এপ্রিল ২০২৪
  • / ২৬৫ বার পড়া হয়েছে

সরকারকে ব্যর্থ প্রমাণের এক পরিকল্পিত নীলনকশার বাস্তবায়ন চলছে। এই নীলনকশার অন্যতম হাতিয়ার মিথ্যাচার ও অপপ্রচার বলে মন্তব্য করেছেন যুবলীগের চেয়ারম্যান শেখ ফজলে শামস পরশ।তিনি বলেন একাত্তরের পরাজিত শক্তি, পঁচাত্তরের ঘাতক এবং তাদের দোসরদের সামনে শেখ হাসিনাই একমাত্র বাধা। শেখ হাসিনাকে ছলে বলে কৌশলে দুর্বল করতে পারলেই পরাজিত শক্তির উত্থান হতে পারে। আজ রবিবার (৭এপ্রিল) বিকাল ৪ টায় দক্ষিণ কেরানীগঞ্জের আগানগর ইউনিয়নের আমবাগিচা মহিলা ডিগ্রী কলেজ মাঠে ঢাকা জেলা উদ্যোগে যুবলীগের ঈদ উপহার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

যুবলীগ চেয়ারম্যান বলেন, ‘সারা ক্ষণ শেখ হাসিনার গণমানুষের সরকারকে ফ্যাসিবাদী, কর্তৃত্ববাদী ও আধিপত্যবাদী দানব সরকার বলে লেবেল করে যাচ্ছেন মির্জা ফখরুল সাহেবরা। তাদের মিথ্যাচারে ফ্যাসিবাদের প্রকৃত সংজ্ঞাই মানুষ ভুলে গেসে। ’৭১-এর ঘাতক এবং ’৭৫-এর ঘাতকদের নিয়ে যেই দলের সৃষ্টি, সেই দল যখনই ক্ষমতা দখল করেছে মানুষকে শোষণ, নিপীড়ন ও নির্যাতন করেছে। তারা এখন শেখ হাসিনার জনগণের সরকারকে গালিগালাজ করে যাচ্ছে।’

তিনি আরও বলেন, ভারতীয় পণ্য বর্জন আন্দোলন উগ্র জাতীয়তাবাদী প্রতিক্রিয়াশীল চিন্তা-ভাবনারই প্রতিচ্ছবি। তাই আমি নতুন প্রজন্মকে বলি এসব অপপ্রচার ও দুরভিসন্ধি সম্পন্ন আন্দোলনকে প্রতিহত করতে হবে।

শেখ পরশ বলেন, একজন পিতা হাজারো অত্যাচার-নির্যাতন সহ্য করে বিশ্বের বুকে আদর্শিক একটি স্বাধীন দেশ প্রতিষ্ঠা করেছেন, আবার তারই সুযোগ্য কন্যা শেখ হাসিনা। স্বাধীন দেশকে অর্থনীতি, শিক্ষা, স্বাস্থ্য, যোগাযোগসহ সবদিক থেকে বিশ্বের বুকে সফল রাষ্ট্র হিসেবে পরিচিত করেছেন।

জেলা যুবলীগের আহবায়ক মো: মিজানুর রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অতিথি হিসেবে আরও ছিলেন
কেন্দ্রীয় যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক মাইনুল হোসেন খান নিখিল এমপি,ঢাকা জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি বেনজির আহমেদ এমপি, কেন্দ্রীয় যুবলীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক সুব্রত পাল, সাংগঠনিক সম্পাদক আবু মনির, উপ তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক এন আই আহমেদ সৈকত, কেরানীগঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যান শাহিন আহমেদ, দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ম.ই. মামুন প্রমুখ।

সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন

সরকারকে ব্যর্থ প্রমাণের এক পরিকল্পিত নীলনকশার চলছে : শেখ পরশ

আপলোড সময় : ০৮:০৫:১২ অপরাহ্ন, রবিবার, ৭ এপ্রিল ২০২৪

সরকারকে ব্যর্থ প্রমাণের এক পরিকল্পিত নীলনকশার বাস্তবায়ন চলছে। এই নীলনকশার অন্যতম হাতিয়ার মিথ্যাচার ও অপপ্রচার বলে মন্তব্য করেছেন যুবলীগের চেয়ারম্যান শেখ ফজলে শামস পরশ।তিনি বলেন একাত্তরের পরাজিত শক্তি, পঁচাত্তরের ঘাতক এবং তাদের দোসরদের সামনে শেখ হাসিনাই একমাত্র বাধা। শেখ হাসিনাকে ছলে বলে কৌশলে দুর্বল করতে পারলেই পরাজিত শক্তির উত্থান হতে পারে। আজ রবিবার (৭এপ্রিল) বিকাল ৪ টায় দক্ষিণ কেরানীগঞ্জের আগানগর ইউনিয়নের আমবাগিচা মহিলা ডিগ্রী কলেজ মাঠে ঢাকা জেলা উদ্যোগে যুবলীগের ঈদ উপহার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

যুবলীগ চেয়ারম্যান বলেন, ‘সারা ক্ষণ শেখ হাসিনার গণমানুষের সরকারকে ফ্যাসিবাদী, কর্তৃত্ববাদী ও আধিপত্যবাদী দানব সরকার বলে লেবেল করে যাচ্ছেন মির্জা ফখরুল সাহেবরা। তাদের মিথ্যাচারে ফ্যাসিবাদের প্রকৃত সংজ্ঞাই মানুষ ভুলে গেসে। ’৭১-এর ঘাতক এবং ’৭৫-এর ঘাতকদের নিয়ে যেই দলের সৃষ্টি, সেই দল যখনই ক্ষমতা দখল করেছে মানুষকে শোষণ, নিপীড়ন ও নির্যাতন করেছে। তারা এখন শেখ হাসিনার জনগণের সরকারকে গালিগালাজ করে যাচ্ছে।’

তিনি আরও বলেন, ভারতীয় পণ্য বর্জন আন্দোলন উগ্র জাতীয়তাবাদী প্রতিক্রিয়াশীল চিন্তা-ভাবনারই প্রতিচ্ছবি। তাই আমি নতুন প্রজন্মকে বলি এসব অপপ্রচার ও দুরভিসন্ধি সম্পন্ন আন্দোলনকে প্রতিহত করতে হবে।

শেখ পরশ বলেন, একজন পিতা হাজারো অত্যাচার-নির্যাতন সহ্য করে বিশ্বের বুকে আদর্শিক একটি স্বাধীন দেশ প্রতিষ্ঠা করেছেন, আবার তারই সুযোগ্য কন্যা শেখ হাসিনা। স্বাধীন দেশকে অর্থনীতি, শিক্ষা, স্বাস্থ্য, যোগাযোগসহ সবদিক থেকে বিশ্বের বুকে সফল রাষ্ট্র হিসেবে পরিচিত করেছেন।

জেলা যুবলীগের আহবায়ক মো: মিজানুর রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অতিথি হিসেবে আরও ছিলেন
কেন্দ্রীয় যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক মাইনুল হোসেন খান নিখিল এমপি,ঢাকা জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি বেনজির আহমেদ এমপি, কেন্দ্রীয় যুবলীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক সুব্রত পাল, সাংগঠনিক সম্পাদক আবু মনির, উপ তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক এন আই আহমেদ সৈকত, কেরানীগঞ্জ উপজেলা চেয়ারম্যান শাহিন আহমেদ, দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ম.ই. মামুন প্রমুখ।

সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন