ঢাকা ০৯:০৪ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৪, ৪ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

জমে উঠেছে ঢাকা-৫ আসনের নির্বাচনের প্রচার-প্রচারণা

মোঃ সালে আহমেদ (নিজস্ব প্রতিবেদক)
মোঃ সালে আহমেদ (নিজস্ব প্রতিবেদক)
  • আপলোড সময় : ১১:২৭:৪৫ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২১ ডিসেম্বর ২০২৩
  • / ২৭৪ বার পড়া হয়েছে

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ঢাকা-৫ আসনে এমপি পদপ্রার্থী ১২ জন। এদের মধ্যে আওয়ামী লীগের প্রার্থী হারুনুর রশীদ মুন্না (নৌকা), সাবেক এমপি হাবিবুর রহমান মোল্লার বড় ছেলে স্বতন্ত্র প্রার্থী মশিউর রহমান সজল মোল্লা (ট্রাক) এবং স্বতন্ত্র প্রার্থী ঢাকা মহানগর দক্ষিণ স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি কামরুল হাসান রিপনকে (ঈগল) ভোটারদের কাছে পরিচিত থাকলেও বাকিরা ভোটারদের কাছে রয়েছেন অচেনা। নির্বাচনী প্রচার শুরুর তৃতীয় দিনে জমে উঠেছে প্রচার-প্রচারণা। নির্বাচন সামনে রেখে অলিগলি ছেয়ে গেছে প্রার্থীদের পোস্টারে, চলছে গণসংযোগ। গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে আওয়ামী লীগের প্রার্থী লিফলেট বিতরণ করেছেন ভোটারদের মাঝে, দিয়েছেন উন্নয়নের প্রতিশ্রুতি।

আর স্বতন্ত্র ও অন্যান্য প্রার্থীরা এদিন মিছিল ও প্রচারণায় অংশ নিয়েছেন। আগামী ৭ জানুয়ারি অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন। এরইমধ্যে প্রচারণায় ব্যস্ত প্রার্থীরা ছুটাছুটি করছেন ভোটারদের বাড়ি বাড়ি। ঢাকা-৫ সংসদীয় আসনের যাত্রাবাড়ি-ডেমরার বিভিন্ন ওয়ার্ডের অলি গলি ব্যানার, পোস্টার ও মাইকিংয়ে সরগরম হয়ে উঠেছে। নানা প্রতিশ্রুতি দিয়ে ভোটারদের দৃষ্টি আকর্ষণ করছেন তৃণমূল বিএনপির মো. আবু হানিফ (সোনালি আঁশ), ইসলামী ঐক্য জোটের আবদুল কায়ুম (মিনার), ইসলামিক ঐক্য ফ্রন্টের আবু জাফর মো. হাবিবুল্লাহ (চেয়ার), ন্যাশনালিস্ট ঐক্য ফ্রন্টের এস এম লিটন (টেলিভিশন), ন্যাশনাল পিপলস পার্টির আরিফুর রহমান (আম), বাংলাদেশ সুপ্রিম পার্টির মোশাররফ হোসেন মিয়া (একতারা), বাংলাদেশ কংগ্রেসের সাইফুল আলম (ডাব), জাতীয় পার্টির মো. সারওয়ার খান (কাঁঠাল), বাংলাদেশ সাংস্কৃতিক মুক্তি জোটের নুরুল আমিন (ছড়ি) প্রতীক প্রার্থীরা।

এদিকে দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ঢাকা-৫ (যাত্রাবাড়ী-ডেমরা ও আংশিক কদমতলী) আসনে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী হারুনর রশীদ মুন্না আনুষ্ঠানিকভাবে প্রচারণা শুরু করেছেন।

গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে ৬৬ নং ওয়ার্ডের অলি গলিতে ও প্রচারণা শুরু হয়। এ সময় উপস্থিত ছিলেন স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ। হারুনর রশীদ মুন্না আনুষ্ঠানিক প্রচারণার শুরুর দিনে সরকারের উন্নয়নচিত্র তুলে ধরে সকল ভোটারদের কাছে নৌকা মার্কায় ভোট চেয়েছেন। এদিন ৬১ নং ওয়ার্ডে গনসংযোগ করেছেন নাগরিক সমাজের ঈগল মার্কার স্বতন্ত্র প্রার্থী আলহাজ্ব মো: কামরুল হাসান রিপন। এ বিষয়ে কামরুল হাসান বলেন, নিজ এলাকা থেকেই প্রচার শুরু করেছি। বুধবার ওয়ার্ডে ওয়ার্ডে পোস্টার টানানো হবে। অপর স্বতন্ত্র প্রার্থী ঢাকা-৫ আসনের প্রয়াত চারবারের এমপি আলহাজ্ব হাবিবুর রহমান মোল্লার পুত্র মশিউর রহমান মোল্লা সজল। তিনি বুধবার ৫০ ও ৬০নং ওয়ার্ডে গণসংযোগে নামেন। তবে গত দুইদিনের মতো তৃতীয় দিনেও স্বতন্ত্র প্রার্থী আলহাজ্ব মশিউর রহমান মোল্লা সজলের মাতুয়াইল কাঠেরপুলের বাসায় প্রধান নির্বাচনী ক্যাম্পে সামনে দেখা যায় নেতা-কর্মীদের ভিড়। এখানে কেউ চা খাচ্ছেন আবার কেউ নির্বাচনী কাজে ব্যস্ততম রয়েছেন। ডেমরা থানা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মশিউর রহমান মোল্লা সজল বলেন, নির্বাচনে জয়লাভ করলে এখানকার মানুষের ভাগ্য উন্নয়নে কাজ করব। বাবার সঙ্গে কাজ করতে গিয়ে অনেক অভিজ্ঞতা রয়েছে আমার। বাবার বিগত চারটি জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আমি দায়িত্ব পালন করেছি। সেই অভিজ্ঞতাকে কাজে লাগানোর চেষ্টা করছি।

তবে এবারের দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন নিয়ে সর্বমহলে উৎকন্ঠা বিরাজ করছে, কি হবে আগামী ৭ তারিখের নির্বাচনে।পাড়া মহল্লায় ও দেখা গেছে নির্বাচনে আমেজ তবে আ,লীগের একাধিক প্রার্থী থাকায় গ্রুপিং ও আন্তকোন্দাল তো থাকছেই এবারের নির্বাচনে।

সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন

জমে উঠেছে ঢাকা-৫ আসনের নির্বাচনের প্রচার-প্রচারণা

আপলোড সময় : ১১:২৭:৪৫ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২১ ডিসেম্বর ২০২৩

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ঢাকা-৫ আসনে এমপি পদপ্রার্থী ১২ জন। এদের মধ্যে আওয়ামী লীগের প্রার্থী হারুনুর রশীদ মুন্না (নৌকা), সাবেক এমপি হাবিবুর রহমান মোল্লার বড় ছেলে স্বতন্ত্র প্রার্থী মশিউর রহমান সজল মোল্লা (ট্রাক) এবং স্বতন্ত্র প্রার্থী ঢাকা মহানগর দক্ষিণ স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি কামরুল হাসান রিপনকে (ঈগল) ভোটারদের কাছে পরিচিত থাকলেও বাকিরা ভোটারদের কাছে রয়েছেন অচেনা। নির্বাচনী প্রচার শুরুর তৃতীয় দিনে জমে উঠেছে প্রচার-প্রচারণা। নির্বাচন সামনে রেখে অলিগলি ছেয়ে গেছে প্রার্থীদের পোস্টারে, চলছে গণসংযোগ। গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুরে আওয়ামী লীগের প্রার্থী লিফলেট বিতরণ করেছেন ভোটারদের মাঝে, দিয়েছেন উন্নয়নের প্রতিশ্রুতি।

আর স্বতন্ত্র ও অন্যান্য প্রার্থীরা এদিন মিছিল ও প্রচারণায় অংশ নিয়েছেন। আগামী ৭ জানুয়ারি অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন। এরইমধ্যে প্রচারণায় ব্যস্ত প্রার্থীরা ছুটাছুটি করছেন ভোটারদের বাড়ি বাড়ি। ঢাকা-৫ সংসদীয় আসনের যাত্রাবাড়ি-ডেমরার বিভিন্ন ওয়ার্ডের অলি গলি ব্যানার, পোস্টার ও মাইকিংয়ে সরগরম হয়ে উঠেছে। নানা প্রতিশ্রুতি দিয়ে ভোটারদের দৃষ্টি আকর্ষণ করছেন তৃণমূল বিএনপির মো. আবু হানিফ (সোনালি আঁশ), ইসলামী ঐক্য জোটের আবদুল কায়ুম (মিনার), ইসলামিক ঐক্য ফ্রন্টের আবু জাফর মো. হাবিবুল্লাহ (চেয়ার), ন্যাশনালিস্ট ঐক্য ফ্রন্টের এস এম লিটন (টেলিভিশন), ন্যাশনাল পিপলস পার্টির আরিফুর রহমান (আম), বাংলাদেশ সুপ্রিম পার্টির মোশাররফ হোসেন মিয়া (একতারা), বাংলাদেশ কংগ্রেসের সাইফুল আলম (ডাব), জাতীয় পার্টির মো. সারওয়ার খান (কাঁঠাল), বাংলাদেশ সাংস্কৃতিক মুক্তি জোটের নুরুল আমিন (ছড়ি) প্রতীক প্রার্থীরা।

এদিকে দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ঢাকা-৫ (যাত্রাবাড়ী-ডেমরা ও আংশিক কদমতলী) আসনে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী হারুনর রশীদ মুন্না আনুষ্ঠানিকভাবে প্রচারণা শুরু করেছেন।

গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে ৬৬ নং ওয়ার্ডের অলি গলিতে ও প্রচারণা শুরু হয়। এ সময় উপস্থিত ছিলেন স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ। হারুনর রশীদ মুন্না আনুষ্ঠানিক প্রচারণার শুরুর দিনে সরকারের উন্নয়নচিত্র তুলে ধরে সকল ভোটারদের কাছে নৌকা মার্কায় ভোট চেয়েছেন। এদিন ৬১ নং ওয়ার্ডে গনসংযোগ করেছেন নাগরিক সমাজের ঈগল মার্কার স্বতন্ত্র প্রার্থী আলহাজ্ব মো: কামরুল হাসান রিপন। এ বিষয়ে কামরুল হাসান বলেন, নিজ এলাকা থেকেই প্রচার শুরু করেছি। বুধবার ওয়ার্ডে ওয়ার্ডে পোস্টার টানানো হবে। অপর স্বতন্ত্র প্রার্থী ঢাকা-৫ আসনের প্রয়াত চারবারের এমপি আলহাজ্ব হাবিবুর রহমান মোল্লার পুত্র মশিউর রহমান মোল্লা সজল। তিনি বুধবার ৫০ ও ৬০নং ওয়ার্ডে গণসংযোগে নামেন। তবে গত দুইদিনের মতো তৃতীয় দিনেও স্বতন্ত্র প্রার্থী আলহাজ্ব মশিউর রহমান মোল্লা সজলের মাতুয়াইল কাঠেরপুলের বাসায় প্রধান নির্বাচনী ক্যাম্পে সামনে দেখা যায় নেতা-কর্মীদের ভিড়। এখানে কেউ চা খাচ্ছেন আবার কেউ নির্বাচনী কাজে ব্যস্ততম রয়েছেন। ডেমরা থানা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মশিউর রহমান মোল্লা সজল বলেন, নির্বাচনে জয়লাভ করলে এখানকার মানুষের ভাগ্য উন্নয়নে কাজ করব। বাবার সঙ্গে কাজ করতে গিয়ে অনেক অভিজ্ঞতা রয়েছে আমার। বাবার বিগত চারটি জাতীয় সংসদ নির্বাচনে আমি দায়িত্ব পালন করেছি। সেই অভিজ্ঞতাকে কাজে লাগানোর চেষ্টা করছি।

তবে এবারের দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন নিয়ে সর্বমহলে উৎকন্ঠা বিরাজ করছে, কি হবে আগামী ৭ তারিখের নির্বাচনে।পাড়া মহল্লায় ও দেখা গেছে নির্বাচনে আমেজ তবে আ,লীগের একাধিক প্রার্থী থাকায় গ্রুপিং ও আন্তকোন্দাল তো থাকছেই এবারের নির্বাচনে।

সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন