ঢাকা ০৬:১৪ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই ২০২৪, ৮ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

কেরানীগঞ্জে চিরকুট লিখে গৃহবধূর আত্মহত্যা

মো: শাহিন (নিজস্ব প্রতিবেদক)
মো: শাহিন (নিজস্ব প্রতিবেদক)
  • আপলোড সময় : ০৫:১২:৪৪ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
  • / ১১৫৪ বার পড়া হয়েছে

ঢাকার কেরানীগঞ্জে চিরকুট লিখে আলো আক্তার (২৩) নামে এক গৃহবধূর আত্মহত্যা করেছে। আজ সকাল ১০টায় দক্ষিণ কেরানীগঞ্জের তেঘরিয়া ইউনিয়নের বাঘৈর নগর গ্রামে স্বামী বাসা থেকে ঝুলন্ত অবস্থায় লাশ উদ্ধার করে দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানা পুলিশ। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে চিরকুটটি উদ্ধার করে পুলিশ। নিহত গৃহবধূ আলো আক্তার কেরানীগঞ্জ মডেল থানার রামেরকান্দা গ্রামের আনোয়ার মিয়ার মেয়ে।

মৃত্যুর আগে আলো আক্তার একটি চিরকুট লিখে গেছেন- প্রিয় স্বামী, আমি আমার জীবনে অনেক বড় ভুল করেছি। আমার মেয়েটাকে দেখ। আমার মৃত্যুর জন্য কেউ দায়ী না। আমার ভুলের কারণে আমি এই পৃথিবী ছাড়তে বাধ্য হলাম। ইতি তোমার বউ।

স্থানীয়রা জানান, সাত বছর আগে আলো আক্তার ও স্বামী মিলনের সাথে বিবাহে আবদ্ধ হন। তাদের ৫ বছরের আসিয়া আক্তার (৫) নামে একটি কন্যা সন্তানো রয়েছে। স্বামী মিলন কুয়েত থাকেন।

নিহত গৃহবধুর মা সীমা বেগম বলেন, আমার মেয়ে আমার বাসায় বেড়াতে গিয়েছিল। কিন্তু কাল তার শাশুড়ী ফোন দিয়ে শশুর বাড়িতে নিয়ে এসেছে।আজ সকলে শুনি আমার মেয়ে ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে। আমি আমার মেয়ের মৃত্যুর বিচার চাই।

এ বিষয়ে দক্ষিন কেরানীগঞ্জ থানার এসআই তারেক বলেন, গৃহবধুর আত্মহত্যার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে এসে ঝুলন্ত অবস্থায় লাশ উদ্ধার করি। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে চিরকুটটি উদ্ধার করি। মৃত্যুর সঠিক কারণ সম্পর্কে নিশ্চিত হতে লাশ ময়নাতদন্তের জন্য স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মর্গে পাঠানো হয়েছে।

সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন

কেরানীগঞ্জে চিরকুট লিখে গৃহবধূর আত্মহত্যা

আপলোড সময় : ০৫:১২:৪৪ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

ঢাকার কেরানীগঞ্জে চিরকুট লিখে আলো আক্তার (২৩) নামে এক গৃহবধূর আত্মহত্যা করেছে। আজ সকাল ১০টায় দক্ষিণ কেরানীগঞ্জের তেঘরিয়া ইউনিয়নের বাঘৈর নগর গ্রামে স্বামী বাসা থেকে ঝুলন্ত অবস্থায় লাশ উদ্ধার করে দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানা পুলিশ। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে চিরকুটটি উদ্ধার করে পুলিশ। নিহত গৃহবধূ আলো আক্তার কেরানীগঞ্জ মডেল থানার রামেরকান্দা গ্রামের আনোয়ার মিয়ার মেয়ে।

মৃত্যুর আগে আলো আক্তার একটি চিরকুট লিখে গেছেন- প্রিয় স্বামী, আমি আমার জীবনে অনেক বড় ভুল করেছি। আমার মেয়েটাকে দেখ। আমার মৃত্যুর জন্য কেউ দায়ী না। আমার ভুলের কারণে আমি এই পৃথিবী ছাড়তে বাধ্য হলাম। ইতি তোমার বউ।

স্থানীয়রা জানান, সাত বছর আগে আলো আক্তার ও স্বামী মিলনের সাথে বিবাহে আবদ্ধ হন। তাদের ৫ বছরের আসিয়া আক্তার (৫) নামে একটি কন্যা সন্তানো রয়েছে। স্বামী মিলন কুয়েত থাকেন।

নিহত গৃহবধুর মা সীমা বেগম বলেন, আমার মেয়ে আমার বাসায় বেড়াতে গিয়েছিল। কিন্তু কাল তার শাশুড়ী ফোন দিয়ে শশুর বাড়িতে নিয়ে এসেছে।আজ সকলে শুনি আমার মেয়ে ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে। আমি আমার মেয়ের মৃত্যুর বিচার চাই।

এ বিষয়ে দক্ষিন কেরানীগঞ্জ থানার এসআই তারেক বলেন, গৃহবধুর আত্মহত্যার খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে এসে ঝুলন্ত অবস্থায় লাশ উদ্ধার করি। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে চিরকুটটি উদ্ধার করি। মৃত্যুর সঠিক কারণ সম্পর্কে নিশ্চিত হতে লাশ ময়নাতদন্তের জন্য স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মর্গে পাঠানো হয়েছে।

সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন