ঢাকা ১১:৩৩ অপরাহ্ন, সোমবার, ২৪ জুন ২০২৪, ১০ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়াচ্ছে ইসলামী ঐক্যজোট

নিজস্ব প্রতিবেদক
নিজস্ব প্রতিবেদক
  • আপলোড সময় : ১২:৫৫:৪৯ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৭ ডিসেম্বর ২০২৩
  • / ৩২৩ বার পড়া হয়েছে

আগামী জাতীয় নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা থেকে সরে দাঁড়াচ্ছে ধর্মভিত্তিক দল ইসলামী ঐক্যজোট। মনোনয়ন প্রত্যাহার করে নিচ্ছেন দলটির মনোনীত প্রার্থীরা।
রোববার (১৭ ডিসেম্বর) সকালে ঢাকা-৯ আসন থেকে মনোনয়ন প্রত্যাহার করে নিয়েছেন দলের যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা শেখ লোকমান হোসাইন।
জানা গেছে, সরকারের পক্ষ থেকে কোনো আসন প্রাপ্তির নিশ্চয়তা না মেলায় এ সিদ্ধান্ত নিচ্ছেন দলটির শীর্ষ নেতৃবৃন্দ। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ইসলামী ঐক্যজোটের কেন্দ্রীয় এক নেতা জানান, নির্বাচন কমিশনের সুষ্ঠু ও নিরপক্ষে নির্বাচনের প্রতিশ্রুতিতে নির্বাচনে অংশ নিয়েছিল ইসলামী ঐক্যজোট।

গত ২৯ নভেম্বর মনোনয়ন দাখিলের শেষ দিন ৪৫ জন প্রার্থী মনোনয়ন দাখিল করেন। যাচাই-বাছাই শেষে বৈধ প্রার্থীর সংখ্যা দাঁড়ায় ৩৫ জনে। মনোনয়ন বাতিল হয় ১০ জনের। আপিলে প্রার্থীতা ফিরে পেয়েছেন আরও ৪ জন। বর্তমানে বৈধ প্রার্থীর সংখ্যা এখন ৩৯ জন। কিন্তু আওয়ামী লীগের ডামি প্রার্থী ও জাতীয় পার্টির সাথে আসনের ভাগ বাটোয়ারা দেখে মনে হচ্ছে, নির্বাচন নয় সিলেকশন হতে যাচ্ছে। তাছাড়া সরকার দলীয় প্রার্থীরা একের পর এক আচরণবিধি লঙ্ঘন করলেও ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে খুব কম। এসব দিক বিবেচনায় নির্বাচনের পরিবেশ বেশ ঘোলাটে মনে হচ্ছে। তাই আমরা প্রার্থিতা প্রত্যাহারের প্রাথমিক সিদ্ধান্ত নিয়েছি। বেলা ১২টায় চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত আসতে পারে।

উল্লেখ্য, দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বৈধ প্রার্থীদের প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ দিন আজ ১৭ ডিসেম্বর। আজ অফিস সময়ের মধ্যে রিটার্নিং কর্মকর্তার কাছে আবেদন করে প্রার্থিতা প্রত্যাহার করতে পারবেন প্রার্থীরা। আর সোমবার (১৮ ডিসেম্বর) প্রার্থীদের মেধ্যে প্রতীক বরাদ্দ দেওয়া হবে। প্রতীক বরাদ্দ পাওয়ার পরই প্রার্থীরা প্রচারণায় নামবেন।

সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন

নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়াচ্ছে ইসলামী ঐক্যজোট

আপলোড সময় : ১২:৫৫:৪৯ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৭ ডিসেম্বর ২০২৩

আগামী জাতীয় নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা থেকে সরে দাঁড়াচ্ছে ধর্মভিত্তিক দল ইসলামী ঐক্যজোট। মনোনয়ন প্রত্যাহার করে নিচ্ছেন দলটির মনোনীত প্রার্থীরা।
রোববার (১৭ ডিসেম্বর) সকালে ঢাকা-৯ আসন থেকে মনোনয়ন প্রত্যাহার করে নিয়েছেন দলের যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা শেখ লোকমান হোসাইন।
জানা গেছে, সরকারের পক্ষ থেকে কোনো আসন প্রাপ্তির নিশ্চয়তা না মেলায় এ সিদ্ধান্ত নিচ্ছেন দলটির শীর্ষ নেতৃবৃন্দ। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ইসলামী ঐক্যজোটের কেন্দ্রীয় এক নেতা জানান, নির্বাচন কমিশনের সুষ্ঠু ও নিরপক্ষে নির্বাচনের প্রতিশ্রুতিতে নির্বাচনে অংশ নিয়েছিল ইসলামী ঐক্যজোট।

গত ২৯ নভেম্বর মনোনয়ন দাখিলের শেষ দিন ৪৫ জন প্রার্থী মনোনয়ন দাখিল করেন। যাচাই-বাছাই শেষে বৈধ প্রার্থীর সংখ্যা দাঁড়ায় ৩৫ জনে। মনোনয়ন বাতিল হয় ১০ জনের। আপিলে প্রার্থীতা ফিরে পেয়েছেন আরও ৪ জন। বর্তমানে বৈধ প্রার্থীর সংখ্যা এখন ৩৯ জন। কিন্তু আওয়ামী লীগের ডামি প্রার্থী ও জাতীয় পার্টির সাথে আসনের ভাগ বাটোয়ারা দেখে মনে হচ্ছে, নির্বাচন নয় সিলেকশন হতে যাচ্ছে। তাছাড়া সরকার দলীয় প্রার্থীরা একের পর এক আচরণবিধি লঙ্ঘন করলেও ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে খুব কম। এসব দিক বিবেচনায় নির্বাচনের পরিবেশ বেশ ঘোলাটে মনে হচ্ছে। তাই আমরা প্রার্থিতা প্রত্যাহারের প্রাথমিক সিদ্ধান্ত নিয়েছি। বেলা ১২টায় চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত আসতে পারে।

উল্লেখ্য, দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে বৈধ প্রার্থীদের প্রার্থিতা প্রত্যাহারের শেষ দিন আজ ১৭ ডিসেম্বর। আজ অফিস সময়ের মধ্যে রিটার্নিং কর্মকর্তার কাছে আবেদন করে প্রার্থিতা প্রত্যাহার করতে পারবেন প্রার্থীরা। আর সোমবার (১৮ ডিসেম্বর) প্রার্থীদের মেধ্যে প্রতীক বরাদ্দ দেওয়া হবে। প্রতীক বরাদ্দ পাওয়ার পরই প্রার্থীরা প্রচারণায় নামবেন।

সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন